সুন্দরবনে র‌্যাবের সাথে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ আরিফ বাহিনীর ৪ সদস্য নিহত : অস্ত্র-গুলি উদ্ধার

প্রকাশিত: ২৫-০২-২০১৯, সময়: ২৩:২৪ |

মোংলা প্রতিনিধি

সুন্দরবনে র‌্যাব-৮ ও জলদস্যু আরিফ বাহিনীর মধ্যে তথিত বন্দুকযুদ্ধে আরিফ বাহিনীর ৪ সদস্য নিহত হয়েছে।

 

সোমবার দুপুর দেড়টার দিকে পুর্ব সুন্দরবনের চাঁদপাই রেঞ্জের জোংড়ার খালের মধ্যে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনাস্থল থেকে ৫টি আগ্নেয়াস্ত্র ও ১১৬ রাউন্ড গুলি এবং ডাকাতির কাজে ব্যবহৃত বিভিন্ন সরঞ্জামাদি উদ্ধার করা হয়েছে।

 

অস্ত্রসহ নিহত জলদস্যুদের লাশ সোমবার রাতে দাকোপ থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হবে বলেও দাকোপ থানা পুলিশ সূত্রে জানা গেছে।

 

 

নিহতরা হলেন, আলতাফ হাওলাদারের ছেলে মোঃ সোহেল হাওলাদার (৩০), তার সহোদর মোঃ রুবেল হাওলাদার (২৭), আফজাল হোসেনের ছেলে মোঃ রাজু (২৪) ও মৃত আওয়াল হাওলাদারের ছেলে মোঃ হালিম হাওলাদার (৩১)। নিহত জলদস্যুদের সকলের বাড়ি বাগেরহাট জেলার মোংলা উপজেলার সিগনাল টাওয়ার নামার চর এলাকায় বলে প্রাথমিক ভাবে জানা গেছে।

 

র‌্যাব-৮ (বরিশাল) সূত্রে জানা গেছে, সম্প্রতি জেলেদের মুক্তিপণের দাবিতে অপহরণ করে জলদস্যু আরিফ বাহিনীর সদস্যরা। তারা জেলে বহরে হামলা, মারধর ও লুটপাট চালিয়ে প্রায় কোটি টাকার ইলিশ এবং অন্যান্য মাছসহ বিভিন্ন মালামাল লুট করে নেয়। এ ছাড়া বনের অন্যান্য জায়গার বেশ কিছু এলাকা থেকে জেলে অপহরণ করেছে তার।

 

গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে সোমবার সুন্দরবনের চাঁদপাই রেঞ্জ হতে আরিফ বাহিনীর ৪ জন জলদস্যুকে গ্রেফতার করা হয়। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা জলদস্যুতার সাথে জড়িত বলে স্বীকার করে। তাদের জলদস্যুতার কাজে ব্যবহৃত অস্ত্র ও গোলাবারুদ চাঁদপাই রেঞ্জের জোংড়ার খালে লুকিয়ে রেখেছে বলেও র‌্যাবকে জানায়। এরপর সেখানে গেলে বনদস্যু আরিফ বাহিনীর সদস্যরা র‌্যাব সদস্যদের লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। এ সময় র‌্যাবও আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি চালায়।

 

উভয়পক্ষের গুলিবিনিময়কালে বাহিনীর ৪ দস্যু গুলিবিদ্ধ হয়। পরবর্তীতে চিকিৎসার জন্য আহত জলদস্যুদের স্থানীয় স্বাস্থ্য সেবা কেন্দ্র নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদেরকে মৃত ঘোষণা করেন। এসময় সেখান থেকে ৩টি বিদেশী একনালা বন্দুক, ১টি বিদেশী দোনালা বন্দুক, ১টি ওয়ান শুটারগান, ৬২ রাউন্ড বন্দুকের তাজা গুলি ও ৫৪টি বন্দুকের গুলির খালি খোসা উদ্ধার করা হয়েছে। জলদস্যুদের মৃত দেহ ৪টি এবং উদ্ধারকৃত অস্ত্র ও গোলাবারুদ দাকোপ থানায় হস্তান্তরসহ মামলা দায়ের করা হয়েছে।

তথ্য টি শেয়ার করুন
  • 2
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    2
    Shares

Leave a comment

উপরে